নিজস্ব সংবাদদাতা, ঝাড়্গ্রাম:
গোপন সূত্রে অবৈধ ভাবে বিদেশি মদ বিক্রির অভিযোগ পেয়ে শুক্রবার ঝাড়গ্রাম জেলার গোপীবল্লভপুর এক ব্লকের শাশড়া চকে একটি বিদেশী মদের দোকানে অভিযান চালিয়ে কয়েক হাজার টাকার বিদেশি মদ উদ্ধার করল গোপীবল্লভপুর থানার পুলিশ। এদিন গোপীবল্লভপুর থানার পুলিশ আধিকারিক দেবাশীষ মালের নেতৃত্বে গোপীবল্লভপুর থানার পুলিশ অতর্কিতে অবৈধভাবে বিদেশি মদ বিক্রির দোকানে অভিযান চালায়। গোপীবল্লভপুর থানার শাশড়া চকের একটি বিদেশী মদের দোকান থেকে ৭৪ বোতল বিদেশি মদ উদ্ধার করে। পুলিশ সূত্রে আরো জানা গেছে, বিদেশী মদ বিক্রির অভিযোগে এক ব্যাক্তিকে গ্রেফতার করে গোপীবল্লভপুর থানার পুলিশ। ইতিমধ্যে পুরো ঘটনার তদন্তে নেমেছে পুলিশ। বেআইনিভাবে কোনো অনুমতি ছাড়া অবৈধভাবে গোপনে বিদেশি মদ এনে বিক্রি করতেন ওই দোকানদার । গোপন সূত্রে খবর পাওয়ার পর পুলিশের পক্ষ থেকে কয়েকদিন ধরে নজরদারী শুরু করা হয়েছিল। অভিযোগ সত্য বলে অনুমান করে শুক্রবার দিনভর তল্লাশি চালায় গোপীবল্লভপুর থানার পুলিশ। পুলিশ তল্লাশি চালিয়ে কয়েক হাজার টাকার বিদেশী মদ উদ্ধার করে । ওই ঘটনায় পুলিশ গ্রেফতার করে ওই দোকানদার কে। শনিবার অভিযুক্ত ব্যক্তিকে ঝাড়গ্রাম আদালতে পেশ করে পুলিশ। আদালতে পেশ করলে মহামান্য বিচারক জেল হেফাজতের নির্দেশ দেন। তবে ওই ঘটনাকে কেন্দ্র করে গোপীবল্লভপুর থানা এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে। পুলিশের পক্ষ থেকে চোলাই মদের বিরুদ্ধে যখন অভিযান চলছে সেই সময় বেআইনিভাবে কিছু মানুষ বিদেশী মদ গোপনে বিক্রি করছে বলে পুলিশ সূত্রে জানা যায়। তাই পুলিশের পক্ষ থেকে অভিযান চালিয়ে বিদেশি মদ উদ্ধার করা হয় বলে জানা গেছে।এই প্রসঙ্গে গোপীবল্লভপুরের এসডিপিও পারভেজ সারফারাজ বলেন, অবৈধ ভাবে বিদেশি মদ বিক্রির বিরুদ্ধে পুলিশের লাগাতার অভিযান চলবে। আগামী দিনে অবৈধ বিদেশী মদের সাথে যুক্ত যারা পুলিশ প্রশাসনের পক্ষ থেকে তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *