সঙ্কেত ডেস্ক: ঘুম ভাঙার আগেই বাড়িতে কড়া নাড়ালেন আয়কর কর্তারা। বুধবার মুর্শিদাবাদের সামশেরগঞ্জে তৃণমূল বিধায়ক বাইরন বিশ্বাসের বাড়িতে হানা দিলেন আয়কর কর্তারা। সাগরদিঘির বিধায়কের বিরুদ্ধে আয়কর ফাঁকি অভিযোগ। সাত সকালে কেন্দ্রীয় বাহিনীকে সঙ্গে নিয়েই বাইরনের বাড়ির ভিতরে ঢুকেছেন আয়কর কর্তারা।সূত্রের খবর এদিন মুর্শিদাবাদ এবং বীরভূমের একাধিক এলাকায় হানা দিয়েছে আয়কর দপ্তর। তার মধ্যে বাইরন বিশ্বাসের বাড়িও রয়েছে। বাইরন বিশ্বাসের পরিবারের মোট সাতটি জায়গায় আয়কর দপ্তর তল্লাশি চালাচ্ছে। তার মধ্যে বাইরন বিশ্বাসের বাড়িও রয়েছে। মোট ৩টি টিম তল্লাশির কাজ চালাচ্ছে বলে জানা যাচ্ছে। বাইরনের বাড়িতে একটি টিম রয়েছে, তাদের গোডাউনে একটি টিম রয়েছে, তাঁর হাসপাতালেও একটি টিম গিয়েছে। সবকটি ঠিকানাই কাছাকাছি। ফলে এই তল্লাশি নিয়ে এলাকায় হইচই শুরু হয়ে গিয়েছে। মনে করা হচ্ছে বাইরন বিশ্বাসের আয় ব্যায়ের হিসেব সংক্রান্ত কোনও অভিযোগ ছিল। তার ভিত্তিতেই তল্লাশি চালাচ্ছে আয়কর দফতর। সূত্রের খবর বাড়িতেই রয়েছেন বাইরন। তাঁর সঙ্গে কথা বলছেন আয়কর দফতরের কর্মীরা। কথা বলা হচ্ছে পরিবারের লোকজনের সঙ্গেও।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, ভোর হতেই বাইরনের বাড়িতে আসেন আয়কর কর্তারা। স্থানীয়রা জানিয়েছেন, বিধায়কের বাড়িতে এখনও তল্লাশি চলছে। গোটা বাড়ি ঘিরে রেখেছে কেন্দ্রীয় বাহিনী। সূত্রের খবর, বিধায়কের বিরুদ্ধে আয়কর ফাঁকি দেওয়ার অভিযোগ রয়েছে দীর্ঘদিন ধরে। তাই এই তল্লাশি অভিযান। প্রসঙ্গত, সাগরদিঘির বিধায়কের পারিবারিক বিড়ি ব্যবসা সহ হাসপাতাল, রাসায়নিক উৎপাদন সহ একাধিক ব্যবসা রয়েছে।গত উপনির্বাচনে কংগ্রেসের প্রার্থী হিসাবে সাগরদিঘি আসনে জিতে সবাইকে চমকে দিয়েছিলেন বাইরন। তৃণমূলের দেবাশিস বন্দ্যোপাধ্যায়কে হারিয়ে বিধায়কর হয়েছিলেন তিনি। বিধানসভায় সংখ্যা পেয়েছিল কংগ্রেস। কিন্তু মাস খানেক পরেই পালাবদল। পূর্ব মেদিনীপুরে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে দেখা করেই তৃণমূলে যোগ দেন বাইরন।

By admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *